আমার জন্য আক্রামণাত্মকতাই হল জয়ের প্যাশন: বিরাট কোহলি

ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলি একজন দুর্দান্ত অধিনায়কের সঙ্গে সঙ্গে একজন আক্রামণাত্মক খেলোয়াড় হিসেবেও পরিচিত। আর আক্রামণাত্মকতাকে তিনি জয়ের প্যাশন বলে উল্লেখ করেছেন। অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে বুধবার থেকে শুরু হতে চলা টি-২০ সিরিজের আগে মঙ্গলবার কোহলি সাংবাদিকদের বলেন যে অস্ট্রেলিয়ায় তার দল জেতার ক্ষমতা রাখে।
ব্রিসবেনে হতে চলা প্রথম টি-২০ জিততেই এই ঐতিহাসিক রেকর্ড গড়া প্রথম দল হয়ে যাবে টিম ইন্ডিয়া
কোহলি বলেন, “ প্রত্যেকের জন্য আক্রামণাত্মকতার আলাদা মানে আর পরিভাষা রয়েছে। আমার জন্য আক্রামণাত্মকতার মানে জয়ের প্যাশন। আমি যে কোনও মূল্যে জয় হাসিল করতে চাই। আক্রামণাত্মকতার আরও একটা মানে এটাও হতে পারে যে আপনি কোন পরিস্থিতিকে নিয়ে কতটা প্যাশনেট আর নিজের দলের জন্য ১১০ শতাংশ দেওয়া আমার প্যাশন”।
আমার জন্য আক্রামণাত্মকতাই হল জয়ের প্যাশন: বিরাট কোহলি 1
ভারত অধিনায়ক আরও বলেন, “এমনিতে আক্রামণাত্মকতা মাঠে বিপক্ষ দলের বিরুদ্ধে পরিস্থিতির উপর নির্ভর করে। যদি তারা আক্রামণাত্মকতা দেখায়, তো আমরাও তার জবাব সেইভাবেই দেব। আমরা সেইরকম দল নয় যারা নিজে থেকে কিছু শুরু করে। আমরা নিজেদের একটি সম্মানের রেখা ঠিক করেছি আর যদি কেউ তাকে লঙ্ঘন করার চেষ্টা করে তো আমরা তাদের বিরুদ্ধে উঠে দাঁড়াব”।
আমার জন্য আক্রামণাত্মকতাই হল জয়ের প্যাশন: বিরাট কোহলি 2
কোহলির ধারনা যে তার দলের মধ্যে অস্ট্রেলিয়ায় জয়ের ক্ষমতা আছে। কোহলির বক্তব্য, “ আপনি বিশ্বের কোনও দলকে কমজুরি মনে করতে পারেন না। আপনি এখানে অস্ট্রেলিয়ায় একটি সম্পূর্ণ দলের সঙ্গে খেলতে এসেছি। আমরা কোনও জিনিস বা স্থিতিকে হালকাভাবে নেবনা”। অধিনায়ক বলেন, “ একটি দল হিসেবে আমাদের ধ্যান ভালো ক্রিকেট খেলে জেতা। আমরা প্রত্যেক সিরিজ জিততে চাই। কম থেকে কম ভুল করা দলই জয় হাসিল করে আর আমাদের ধ্যান এর উপরেই কেন্দ্রিত রয়েছে। অস্ট্রেলিয়া সফর সবসময়ই দলের জন্য গুরুত্বপূর্ণ থেকেছে আর আমরা নিশ্চিতভাবেই এখানে জিততে চাই”।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *