২০১৯ বিশ্বকাপ পর্যন্ত খেলতে চান ধোনি 1

নয়া দিল্লি, ১ নভেম্বর: ভারতের ক্রিকেটে ইতিহাসের অন্যতম সফল অধিনায়ক হিসেবে ইতিমধ্যেই নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করেছেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। গত শনিবার তাঁরই নেতৃত্বে নিউজিল্যান্ডকে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে ৩-২ ব্যবধানে হারিয়ে দিয়েছে ভারত। ২০১৭ সালে ইংল্যান্ডের মাটিতে চ্যাম্পিয়নস ট্রফির আসর বসবে। তার দু বছর পরেই ক্রিকেট বিশ্বকাপ। আর ২০১৯ বিশ্বকাপ পর্যন্ত নিজের কেরিয়ারকে টেনে নিয়ে যাবার ইচ্ছা রয়েছে ভারতীয় ওয়ানডে ও টি-২০ আর্ন্তজাতিক দলের অধিনায়ক মাহির।

আগামী বছর জুনে ইংল্যান্ডে অনুষ্ঠিত হবে চ্যাম্পিয়নস ট্রফি। সেখানেই আয়োজিত হবে ২০১৯ ক্রিকেট বিশ্বকাপ। প্রাক্তন উইকেটরক্ষক কিরন মোরে বলেছেন, “আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিটনেস সবচেয়ে বড় নিয়ামক। কিন্তু ধোনিকে সেই বিষয়টি নিয়ে মোটেই চিন্তা করতে হবে না। ২০১৯ সাল পর্যন্ত তার খেলার সম্ভাবনা যথেষ্ঠ উজ্জ্বল রয়েছে।” 

ধোনির হয়ে ব্যাট ধরেছেন আশিস নেহরাও৷ ভারতের এই ফাস্ট বোলারটি এক ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে বলেন, “২০১৯ বিশ্বকাপের সময় ধোনির বয়স হবে ৩৮৷ আর এখনকার দিনে বয়সটা কোন ফ্যাক্টর নয়৷ পাকিস্তার ইউনুস খান ও মিসবাহ উল হকের মতো ক্রিকেটাররা ৪০ বছর বয়সেও খেলে চলেছেন৷ আর ধোনির মতো ফিট ক্রিকেটারের ২০১৯ বিশ্বকাপ খেলতে কোন সমস্যা হবে না৷ ধোনির আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নেওয়ার কোন কারণ আমি অন্তত দেখতে পাচ্ছি না৷”

এ দিকে, বাংলাদেশের বিরুদ্ধে শেষ টেস্ট ম্যাচটি নির্ধারিত সময়ের দু’দিন আগেই হেরে গিয়েছে ইংল্যান্ড। তারপরও আগামী ২ নভেম্বর পর্যন্ত ঢাকায় থাকবেন ইংলিশরা। জানা গিয়েছে, ওইদিন ঢাকা থেকে সোজা মুম্বইয়ে আসবে ইংল্যান্ড দল। ফ্লাইটের সূচি আগেই ঠিক করে রাখায় আরও কয়েকদিন ঢাকায় থেকে যেতে হচ্ছে ইংলিশদের। ভারত সফরে পাঁচটি টেস্ট, তিনটি ওয়ানডে ও দুটি টি-২০ খেলবে ইংল্যান্ড। কুক-রুটরা তাই ভারত সফরের প্রস্তুতিটা ঢাকায় থেকেই শুরু করবেন। আগামী কয়েকদিনে ঢাকায় অনুশীলন করতে পারে ইংল্যান্ড।

 

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *