ঋদ্ধিমান সাহা

ভারতীয় ক্রিকেট দল টেস্টের আসরে নামতে চলার সঙ্গে সঙ্গে অভিজ্ঞ অফ-স্পিনার রবিচন্দ্রন অশ্বিন আবার ফিরছেন আন্তর্জাতিক মঞ্চে। তিন ম্য়াচের টেস্ট সিরিজের পর্থম ম্য়াচ কলকাতার ইডেন গার্ডেন্সে। ১৬ নভেম্বর খেলা শুরু। সীমিত ওভারের ক্রিকেট ফিঙ্গার স্পিনারদের কারিকুরি-জোরাজুরি এখন কমে আসছে। আর সেই তালিকায় অশ্বিনও রয়েছেন। তেমনভাবে মাঝের ওভারগুলিতে সফল হতে না পারার ভারতীয় দলের নীল জার্সি তাঁর কাছ থেকে কেড়ে নিয়েছেন নির্বাচকরা। আবারও বলতে হচ্ছে, উইকেট পাননি, বিষয়টা কিন্তু তা নয়। বিষয় হলো, মাঝের ওভারগুলিতে রান না আটকাতে পারা। সেই কারণে নির্বাচকরা যুজবেন্দ্র চহল, কুলদীপ যাদব এবং অক্ষর প্য়াটেলের মতো একাধিক বিকল্প খুঁজে নিয়েছেন।
কলকাতা টেস্টে অশ্বিনের মতো জাদেজাও দলে ফিরছেন। সীমায়িত ওভারের ফরম্য়াটে জাদেজাকে প্রায় জোর করেই বাদ দেওয়া হয়েছে বলাই যায়। এদিকে, টেস্টের আসরে আইসিসি ব়্য়াঙ্কিংয়ে দিক থেকে জাদেজা অনেকটাই এগিয়ে অশ্বিনের চেয়ে। কিন্তু, টেস্টের আসরের স্পেশালিস্ট উইকেটকিপার বাংলার ঋদ্ধিমান সাহা মনে করেন জাদেজার চেয়ে স্পিনার হিসেবে বেশ খানিকটা এগিয়ে তাঁর জুড়িদার। শুধু তাই নয়, ঋদ্ধির মতো সীমায়িত ওভারের ক্রিকেটে চহল, কুলদীপ, অক্ষরদের সুযোগ দেওয়া হলেও অশ্বিনের হাতে অনেক বেশি বৈচিত্র রয়েছে।
ইডেন ঘরের মাঠে খেলতে নামার আগে ঋদ্ধি বলছেন, ”অশ্বিন অনেক এগিয়ে অন্য়দের চেয়ে। ওর হাতে অনেক বৈচিত্র রয়েছে ব্য়াটসম্য়ানটের ঠকানোর জন্য়। লেন্থে যা বৈচিত্র আনে, ওর বিরুদ্ধে খেলা খুব মুশকিল। জাদেজা, কুলদীপের চেয়েও অনেক বেশি বৈচিত্র রয়েছে।”
”আমরা অনেক রঞ্জি ম্য়াচ খেলেছি একে অপরের বিরুদ্ধে। ভারতীয় এ দলের হয়ে খেলেছি একসঙ্গে। তারপর প্র্য়াক্টিস সেশনে ওর বলে কিপিং করেছি। আমি এই যে দেশের হয়ে আটাশটি টেস্ট ম্য়াচ খেলেছি, তাতে সবকটাই ওর সঙ্গে খেলা। যত বেশি কিপিং করেছি ওর বোলিংয়ে, তত বেশি করে আইডিয়া হয়ে গিয়েছে।”
ইডেনে সিরিজের প্রথম টেস্ট ম্য়াচ জিতে নিয়ে শ্রীলঙ্কাকে চাপে ফেলে দিয়ে নুইয়ে দেওয়ার লক্ষ্য় নিয়ে মাঠে নামবে ভারতীয় দল। ঋদ্ধি বলছেন, ”আমরা এখনও উইকেট দেখিনি। কিন্তু, প্রথম থেকেই আমাদের টার্গেট একটাই। এই টেস্টে জিতে ওদের চাপে ফেলে দেওয়া। যদিও প্রত্য়েকটা ম্য়াচই গুরুত্বপূর্ণ। সবই ম্য়াচই আলাদা আলাদা চ্য়ালেঞ্জ নিয়ে আসে। ম্য়াচ বাই ম্য়াচ আমরা এগোই। এই সিরিজ শেষ হলে আমরা দক্ষিণ আফ্রিকা সফর নিয়ে ভাবনা-চিন্তা শুরু করে দেবো।”
যে কোনও দলে উইকেটকিপারের একটা বড় ভূমিকা থাকে। কারণ, উইকেটের পিছনে দাঁড়িয়ে উইকেটকিপার বুঝে যান, পিচ কেমন আচরণ করছে, ম্য়াচ কোন দিকে গড়াতে পারে। প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনির মতো ধুরন্ধর উইকেটকিপার আবার এতটাই পাকা মাথার যে অনেক আগেই বুঝে যান। সীমিত ওভারের ক্রিকেটে ধোনিই দলকে পরিচালনা করছেন বিরাট নেতা হলেও। এ প্রসঙ্গে ঋদ্ধি বলছেন, ”টিম ম্য়ানেজমেন্ট বলেই দিয়েছে, সবাই নিজেই মতামত দিতে পারবে। কোহলি বেশিরভাগ সময়েই স্লিপে ফিল্ডিং করে। তাই আমিও অধিনায়ককে আমার মতামত জানাই ম্য়াচের সময়। তবে, যাইহোক, চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া অধিনায়কের দায়িত্ব। আসল ব্য়াপার হলো, মনে আত্মবিসশ্বাস নিয়ে অধিনায়ককে নিজের মতামত জানানো।”

  • SHARE

    আরও পড়ুন

    বিগ ব্যাশ লীগের অষ্টম অ্যাডিশনের সময়সূচি প্রকাশ করেছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া

    প্রতিবছরের মত এবারো ডিসেম্বর মাসেই শুরু হতে যাচ্ছে অস্ট্রেলিয়ার জনপ্রিয় ঘরোয়া টি-২০ বিগ ব্যাশ লীগ(বিবিএল)। আট দলের...

    ধোনির ভক্তদের জন্য সম্ভবত খারাপ খবর, ধোনির অবসর আশংকা নিয়ে উত্তপ্ত টুইটার

    গতকাল স্বাগতিক ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ২-১ ব্যবধানে সিরিজ হারার পর ড্রেসিং রুমে ফেরার সময় প্রাক্তন ভারতীয় অধিনায়ক মহেন্দ্র...

    স্মৃতি মন্ধনার জন্মদিনে শুভকামনা জানালেন শচীন তেন্ডুলকর ও আনজুম চোপড়া

    ভারতীয় মহিলা ক্রিকেট দলের ওপেনার স্মৃতি মন্ধনার জন্মদিনে তাঁকে শুভকামনা জানিয়ে টুইট বার্তা পাঠিয়েছেন ভারতের কিংবদন্তী ক্রিকেট...

    BREAKING NEWS: ইংল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম তিনটি টেস্ট ম্যাচের জন্য ভারতীয় টিম ঘোষণা ,এই ক্রিকেটার পেলেন না জায়গা

    ভারত আর ইংল্যান্ডের মধ্যে ওয়ানডে সিরিজের শেষ এবং সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ গতকাল হেডিংলের লীডস ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত...

    হার্দিক পাণ্ডিয়ার চুল অনন্য, চর্চার জন্য উইকিপিডিয়ায় নতুন ভাবে ভূষিত হলেন তিনি!

    এ ব্যাপারে কোনো সন্দেহ নেই যে, হার্দিক পাণ্ডিয়া বর্তমান ক্রিকেট বিশ্বে ভারতের জন্য অন্যতম সেরা অলরাউন্ডারদের মধ্যে...