ব্যাটিং বিপর্যয়ই পরাজয়ের মূল কারণ, মানলেন কোহলি 1

পুনেতে প্রথম টেস্টে অজি বোলারদের সামনে পুরোপুরিভাবে ধরাসায়ী ভারতের মজবুত ব্যাটিং লাইনআপ। প্রথম ইনিংস থেকেই কোনও রকমভাবে অস্ট্রেলিয়ান বোলারদের মোকাবিলা করতে পারল না ভারত। আর তাই প্রথম টেস্টে ভারতের সোচনীয় পরাজয়ের জন্য ভিলেন হয়ে রইল ব্যাটিং ডিপার্টমেন্ট।ঠিক এই কারণগুলি স্বীকার করে নিয়েই, এই পরাজয়ের জন্য নিজেদের দায় মেনে নিলেন ভারতীয় অধিনায়ক বিরাট কোহলি।পুনেতে তিনদিনেই ম্যাচ শেষ হওয়ার পর কোহলি নিজেই স্বীকার করে নিয়ে বলেন,

‘এই ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার কাছে আমরা ধরাসায়ী হয়েছি।প্রথম ইনিংসের পর ফিরে আসার মত কোনও রাস্তা ছিল না।অস্ট্রেলিয়া আমাদের থেকে অনেক ভালো খেলেছে। কিন্তু আমরা কখনই ওদের হালকাভাবে নিইনি।আমাদের পরাজয়ের মূল কারণ, খুবই দুর্বল ব্যাটিং। সম্ভবত শেষ দু’বছরে এটাই আমাদের সবথেকে খারাপ ব্যাটিং।’

http://bengali.sportzwiki.com/1143/players-who-can-score-300/
পুনের পিচ ব্যাঙ্গালুরু বা মুম্বইয়ের মত নয়। এই পিচে বল আস্তে ও স্কিট করে আসে।এমন একটা স্লো পিচে ব্যাট করা সহজ হবে না, তা আগে থেকেই জানা ছিল সবার। কিন্তু প্রশ্নটা সেখানেই। প্রথম ইনিংসে অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটিং দেখা সত্ত্বেও কেনো ঠিক মত রণনীতি বানাল না ভারতীয় ব্যাটিং বিভাগ! ভারতীয় বোলারদেকর কোনও দোষ দেওয়া যায় না। প্রথম ইনিংসে তারা অস্ট্রেলিয়াকে ২৬০ এর মধ্যে বেঁধে রাখতে পেরেছিল। পরের ইনিংসেও ২৮৫ তেই প্যাভিলিয়নে ফিরিয়ে দিয়েছিল অজিদের। রবিচন্দ্রন অশ্বিন, জাডেজা, উমেশ যাদব ভাল বোলিং করয়েছেন।যোগ্য অধিনায়কের মত কোহলি বোলারদের বাহবা দিতে পিছপা হননি। তিনি ব্লেন, ‘ বোলাররা ভালই বল করেছে। বিশেষ করে উমেষ যাদব। উমেশ গত চারমাস ধরে কঠিন পরিশ্রম করেছে। এরফল এই ম্যাচে দেখা গেল। ও বরাবরই ভাল গতিতে বল করেছে। বিশেষ করে সেগুলি যখন রিভার্স স্যুইং হচ্ছিল, আরও মারাত্মক হয়ে উঠছিল।’
ম্যাচ হারলেও, কোহলি দাগ কেটে গেলেন তাঁর সৌজন্যতা ও পরাজয়কে বুক চিতিয়ে মেনে নেওয়ার সাহসের জন্য।তাঁর কথায়, ‘পুনে সাধারণত স্লো পিচ। আমাদের থেকে বেশী ওরাই এই পিচের সঠিক ব্যবহার করেছে। অস্ট্রেলিয়া আজকের জয়ের যোগ্য দাবিদার। তাই ওরাই জিতেছে।’ তিনি আরও বলেন, আমরাও যথেষ্ঠ ভাল খেলেছি। কিন্তু তবুও কোনও অজুহাত না দেখিয়ে এই পরাজয়ের দায় আমরা বুক পেতে নিচ্ছি।’

বিরাটকে দলে চেয়েছিল মুম্বই ইন্ডিয়ান্স : হরভজন


এদিকে, স্টিভ স্মিথ এই ঐতিহাসিক জয়ের জন্য দলের ক্রিকেটারদের উষ্ণ অভিনন্দন জানিয়েছেন।বিশেষ করে পুনের জয়ের নেতা স্পিনার ওক্যাফির প্রশংসা করেন তিনি। তিনি বলেন, ‘ পিচ অনুযায়ী প্রথম ইনিংসে ২৬০ রান, ভাল স্কোর ছিল। পাশাপাশি বোলাররাও যথযোগ্য সহযোগীতা করেছে। বিশেষ করে ওক্যাফি অসাধারণ প্রদর্শন করেছে। এই জয়ের জন্য অমি গর্বিত।’

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *