বিশ্বকাপে এই ৬ খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন হতে পারেন ম্যান অফ দ্য টুর্নামেন্ট, এক নম্বর প্রথম দাবীদার

৩০ মে থেকে বিশ্বকাপ ২০১৯ শুরু হচ্ছে, যা বিশ্বজুড়ে সেরা ১০টি দলের মধ্যে খেলা হবে। এই বিশ্বকাপ ২০১৯এ বিশ্বের ১৫০জন দুর্দান্ত খেলোয়াড় খেলতে চলেছেন এই ৫০ খেলোয়াড়দের মধ্যে আজ আমরা আপনাদের এই বিশেষ প্রতিবেদনে ৬টি দেশের ৬জন এমন খেলোয়াড়ের নাম জানাব, যে বিশ্বকাপ ২০১৯এর ম্যান অফ দ্যা টুর্নামেন্টের খেতাব জিততে পারেন।

বিরাট কোহলি (ভারত)

বিশ্বকাপে এই ৬ খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন হতে পারেন ম্যান অফ দ্য টুর্নামেন্ট, এক নম্বর প্রথম দাবীদার 1

ভারতীয় দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলি বর্তমান সময়ের বিশ্বের সর্বশ্রেষ্ঠ ব্যাটসম্যান। তার দুর্দান্ত ওয়ানডে ফর্মের আন্দাজ এই কথাই লাগানো যেতে পারে যে তিনি গত ২৮টি ইনিংসে মোট ১১টি সেঞ্চুরি করেছেন। অন্যদিকে প্রথমবার তিনি অধিনায়ক হিসেবে বিশ্বকাপ খেলবেন। এই বড়ো মঞ্চে তিনি নিজেকে একজন ব্যাটসম্যান হিসেবেও প্রমান করতে চাইবেন। কারণ গত দুটি বিশ্বকাপ তার জন্য খুব ভাল যায়নি। তিনি বিশ্বকাপ ২০১৯এ ‘ম্যান অফ দ্য টুর্নামেন্ট’ জেতার প্রবল দাবীদার।

কাগিসো রাবাদা (দক্ষিণ আফ্রিকা)

বিশ্বকাপে এই ৬ খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন হতে পারেন ম্যান অফ দ্য টুর্নামেন্ট, এক নম্বর প্রথম দাবীদার 2

দক্ষিণ আফ্রিকার জোরে বোলার কাগিসো রাবাদাও বিশ্বকাপ ২০১৯এর ‘ম্যান অফ দ্যা টুর্নামেন্ট’ জেতার সবচেয়ে প্রবল দাবীদার হবেন। তিনি নিজের ঝোড়ো গতির জোরে বোলিংয়ের জন্য পরিচিত। তার বলের গতির সামনে কোনো ব্যাটসম্যানের উইকেটে দাঁড়িয়ে থাকা মুশকিল হয়। তার বর্তমান ফর্মও দুর্দান্ত রয়েছে। তিনি আইপিএল ২০১৯এ দিল্লি ক্যাপিটালসের হয়ে খেলে ১২টি ম্যাচে মোট ২৫টি উইকেট হাসিল করেছিলেন। তাকে বর্তমান সময় বিশ্বকাপের সর্বশ্রেষ্ঠ জোরে বোলারও মানা হয়। তিনি নিজের ঝড়ো বোলিংয়ে বিশ্বকাপেও বাজ ফেলতে পারেন। আর সহজেই ম্যান অফ দ্যা টুর্নামেন্টের খেতাব জিততে পারেন।

৩. ট্রেন্ট বোল্ট (নিউজিল্যান্ড)

বিশ্বকাপে এই ৬ খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন হতে পারেন ম্যান অফ দ্য টুর্নামেন্ট, এক নম্বর প্রথম দাবীদার 3

নিউজিল্যাণ্ডের জোরে বোলার ট্রেন্ট বোল্ট নিজের দ্রুত গতির বোলিংয়ের বাজ ২০১৫র বিশ্বকাপে ফেলেছিলেন। তিনি বিশ্বকাপ ২০১৫য় মোট ২২টি উইকেট নিয়েছিলেন আর তিনি মিচেল স্টার্কের সঙ্গে সবচেয়ে বেশি উইকেট নেওয়ার বোলারদের তালিকায় সংযুক্তভাবে প্রথম স্থানে ছিলেন। ট্রেন্ট বোল্ট নিজের গতি আর সুইং হুয়া বোলিংয়ে এবারও বিশ্বকাপে কামাল দেখাতে পারেন আর বিশ্বকাপ ২০১৯ এর ম্যান অফ দ্যা টুর্নামেন্টের খেতাব জিততে পারেন। তার নামও বর্তমান সময়ের সর্বশ্রেষ্ঠ জোরে বোলারদের মধ্যে নেওয়া হয়।

৪. ডেভিড ওয়ার্নার (অস্ট্রেলিয়া)

বিশ্বকাপে এই ৬ খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন হতে পারেন ম্যান অফ দ্য টুর্নামেন্ট, এক নম্বর প্রথম দাবীদার 4

অস্ট্রেলিয়া থেকে ওপেনিং ব্যাটসম্যান ডেভিড ওয়ার্নার ‘ম্যান অফ দ্যা টুর্নামেন্টের প্রবল দাবীদার থাকবেন। তার বর্তমান ফর্ম ভীষণই দুর্দান্ত। তিনি আইপিএল ২০১৯এ সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদের হয়ে মোট ১২টি টি-২০ ম্যাচ খেলেছিলেন। যার মধ্যে তিনি ৬৯.২০র গড়ে আর ১৪৩এর স্ট্রাইকরেটে মোট ৬৯২ রান করেছিলেন। এর মধ্যে তিনি ৮টি হাফসেঞ্চুরি আর একটি সেঞ্চুরিও করেছিলেন। তার এই অসাধারণ ফর্মকে দেখে তাকে নিশ্চিতভাবেই বিশ্বকাপ ২০১৯এর ম্যাচ অফ দ্যা টুর্নামেন্টের প্রবল দাবীদার মানা যেতে পারে।

৫. বেন স্টোকস (ইংল্যান্ড)

বিশ্বকাপে এই ৬ খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন হতে পারেন ম্যান অফ দ্য টুর্নামেন্ট, এক নম্বর প্রথম দাবীদার 5

বেন স্টোকস ইংল্যান্ডের এমন একজন খেলোয়াড় যিনি দুই বিভাগে প্রদর্শন করার ক্ষমতা রাখেন। তিনি মিডল অর্ডারে দুর্দান্ত ব্যাটিংও করতে পারেন আর বোলিংয়েও নিজের দলের হয়ে যোগদান দিতে পারেন। তিনি আইপিএল ২০১৭য় নিজের দুর্দান্ত প্রদর্শনে ম্যান অফ দ্যা টুর্নামেন্ট খেতাব জিতেছেন। এখন ২০১৯এর বিশ্বকাপেও তার নজর ম্যান অফ দ্যা টুর্নামেন্টের খেতাব জেতার দিকে থাকবে। তার কাছে এই খেতাব জেতার যোগ্যতাও রয়েছে।

৬. ফকর জামান (পাকিস্তান)

বিশ্বকাপে এই ৬ খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন হতে পারেন ম্যান অফ দ্য টুর্নামেন্ট, এক নম্বর প্রথম দাবীদার 6

পাকিস্তানের তরুণ ওপেনার ব্যাটসম্যান ফকর জামানও এই বিশ্বকাপে ম্যান অফ দ্যা টুর্নামেন্ট জিততে পারার ক্ষমতা রাখেন। তিনি ২০১৭র চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে সেঞ্চুরি করে নিজের সক্ষমতা সকলকে দেখিয়েছেন। অন্যদিকে তিনি জিম্বাবোয়ের বিরুদ্ধে ডবল সেঞ্চুরিও করেছেন। ফখর জামান এখনো পর্যন্ত নিজের খেলা ৩৬টি ওয়ানডে ম্যাচে ৫১.৩১এর দুর্দান্ত গড়ে মোট ১৬৪২ রান করেছেন। তিনি ওয়ানডেতে মোট ৪টি সেঞ্চুরিও করেছেন। পাকিস্তানী দলের কাছ থেকে বিশ্বকাপে যথেষ্ট আশাও থাকবে।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *