৫ জন ব্যাটসম্যান, যারা টেস্ট ক্রিকেটে সবচেয়ে বেশিবার খেলেছেন ৩০০র বেশি বল

টেস্ট ক্রিকেটে ওভারের কোনো সীমা নেই, এই কারণে ব্যাটসম্যান যত ইচ্ছে তত বল খেলতে পারেন। বেশকয়েকবার ব্যাটসম্যান ৩০০র বেশি বলও নিজের ইনিংসে খেলেন। আজ আমরা এই বিশেষ প্রতিবেদনে সেই ৫জন তারকা ব্যাটসম্যানের কথা বলব যারা টেস্ট ক্রিকেটে সবচেয়ে বেশিবার ৩০০র বেশি বল খেলেছেন।

৫. শচীন তেন্ডুলকর

৫ জন ব্যাটসম্যান, যারা টেস্ট ক্রিকেটে সবচেয়ে বেশিবার খেলেছেন ৩০০র বেশি বল 1

ক্রিকেটের ভগবান বলে পরিচিত শচীন তেন্ডুলকর ক্রিকেট মাঠে অগুনতি রেকর্ড করেছেন। শচীন তেন্ডুলকর টেস্ট ক্রিকেটে ৫৩.৭৮ এর দুর্দান্ত গড়ে ১৫৯২১ রান করেছেন। টেস্টে তিনি ৫১টি সেঞ্চুরি করেছেন। তিনি নিজের টেস্ট কেরিয়ারে মোট ১১বার ৩০০র বেশি বল খেলেছেন। যদি শচীন তেন্ডুলকরের পুরো ওয়ানডে কেরিয়ারের কথা বলা হয় তো তিনি মোট ৪৬৩টি ওয়ানডে ম্যাচ খেলেছেন, যার মধ্যে তিনি৪৪.৮ গড়ে ১৮৪২৬ রান করেছেন। এর মধ্যে তার স্ট্রাইকরেট ৮৬.২ থেকেছে। তিনি নিজের ওয়ানডে কেরিয়ারে ৪৯টি সেঞ্চুরি এবং ৯৬টি হাফসেঞ্চুরি করেছেন। তার সর্বোচ্চ স্কোর অপরাজিত ২০০। টি-২০ আন্তর্জাতিকে তিনি ১টি ম্যাচ খেলেছেন যেখানে তিনি ১০ রান করেছেন।

৪. জ্যাক কালিস

৫ জন ব্যাটসম্যান, যারা টেস্ট ক্রিকেটে সবচেয়ে বেশিবার খেলেছেন ৩০০র বেশি বল 2

যদি ১৪০ বছরের ক্রিকেট ইতিহাসে বিশ্বের সবচেয়ে সেরা অলরাউন্ডারের কথা বলা হয় তো তা শুধু আর শুধু মাত্র জ্যাক কালিসই হবেন আর নিজের এই মহানতার কারণে তিনি টেস্টে সবচেয়ে বেশি রান করার বিষয়ে ১৩২৭৯ রান করে তৃতীয় নম্বরে রয়েছেন। ক্যালিস ১৯৯৫তে নিজের ডেবিউ করেন আর ২০১৩য় নিজের ক্রিকেট কেরিয়ারকে বিদায় জানিয়েছিলেন। তিনি নিজের টেস্ট ক্রিকেট কেরিয়ারে ১২ বার ৩০০র বেশি বল খেলেছেন। ক্যালিস ১৬৬টি ম্যাচের ২৮০টি ইনিংসে ৫৫.৩৭ গড়ে ১৩২৭৯ রান করেছেন। এর মধ্যে তিনি ৪৫টি সেঞ্চুরি আর ৫৮টি হাফসেঞ্চুরি করেছেন, এর মধ্যে তার সর্বাধিক স্কোর ২২৪ রানের ছিল। কালিস টেস্টে ১৪৮৮টি বাউন্ডারি আর ৯৭টি ছক্কা মেরেছেন, অন্যদিকে তিনি নিজের দুর্দান্ত ফিল্ডিংয়ে ২০০ ক্যাচও নিয়েছেন। অন্যদিকে ক্যালিস নিজের টেস্ট কেরিয়ারে ২৯২টি উইকেটও নিয়েছেন।

৩. জিওফ্রে বয়কট

৫ জন ব্যাটসম্যান, যারা টেস্ট ক্রিকেটে সবচেয়ে বেশিবার খেলেছেন ৩০০র বেশি বল 3

জিওফ্রে বয়কট ইংল্যান্ড ক্রিকেটের একজন বড়ো নাম। তিনি ইংল্যান্ডের হয়ে ১০৮টি টেস্ট ম্যাচে ৪৭.৭৩ এর দুর্দান্ত গড়ে ৮১১৪ রান করেছেন। অন্যদিকে তিনি নিজের খেলা ৩৬টি ওয়ানডে ম্যাচে ৩৬.৭ গড়ে ১০৮২ রান করেছেন। টেস্ট ক্রিকেটে যেখানে তিনি ২২টি সেঞ্চুরি করেছেন অন্যদিকে ওয়ানডে ক্রিকেটেও তিনি ইংল্যান্ডের হয়ে একটি সেঞ্চুরি করেছেন। তিনি টেস্ট ক্রিকেটে একটি ডবল সেঞ্চুরিও করেছেন। সেই সঙ্গে তিনি টেস্টে ৪২টি হাফসেঞ্চুরিও করেছেন। তিনি নিজের টেস্ট কেরিয়ারে মোট ১৫বার ৩০০র বেশি বল খেলেছেন।

২. কুমার সাঙ্গাকারা

৫ জন ব্যাটসম্যান, যারা টেস্ট ক্রিকেটে সবচেয়ে বেশিবার খেলেছেন ৩০০র বেশি বল 4

শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট দলের মহান খেলোয়াড় ১২৪০০ রান করে এই তালিকায় পঞ্চম স্থানে রয়েছেন। সাঙ্গাকারা নিজের ডেবিউ ৫জুলাই ২০০০ সালে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে করেছিলেন। আর তিনি নিজের শেষ ম্যাচ ভারতের বিরুদ্ধে ২০১৫য় খেলেছিলেন। সাঙ্গাকারাও ক্রিকেট মাঠে বেশকিছু কৃতিত্ব হাসিল করেছেন আর দীর্ঘ সময় ধরে শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট দলের প্রাণস্বরূপ থেকেছেন। সাঙ্গাকারা ১৩৪টি ম্যাচের ২৩৩টি ইনিংসে ৫৭.৪ গড়ে ১২,৪০০ রান করেছেন। এর মধ্যে তিনি ৩৮টি সেঞ্চুরি আর ৫২টি হাফসেঞ্চুরি করেছেন। তার সর্বাধিক স্কোর ৩১৯ রান। সাঙ্গাকারা টেস্টে ১৪৯১টি বাউন্ডারি আর ৫১টি ছক্কাও মেরেছেন। অন্যদিকে তিনি উইকেটের পেছনেও ২০টি স্ট্যাম্পিং আর ১৮২টি ক্যাচ নিয়েছেন। তিনি নিজের টেস্ট কেরিয়ারে ১৬বার ৩০০র বেশি বল খেলেছেন।

১. রাহুল দ্রাবিড়

৫ জন ব্যাটসম্যান, যারা টেস্ট ক্রিকেটে সবচেয়ে বেশিবার খেলেছেন ৩০০র বেশি বল 5

রাহুল দ্রাবিড় টেস্ট ক্রিকেটের ইতিহাসে ৩০০র বেশি বল ১৬ বার খেলেছেন। তিনি সবসময়ই এমন একজন ব্যাটসম্যান থেকেছেন, যিনি যথেষ্ট সংযমের সঙ্গে ব্যাটিং করতেন। রাহুল দ্রাবিড় ভারতীয় দলের হয়ে ১৬৪টি টেস্ট ম্যাচ, ৩৪৪টি ওয়ানডে ম্যাচ এবং একটি টি-২০ ম্যাচ খেলেছেন। রাহুল দ্রাবিড় ১৬৪টি টেস্ট ম্যাচে ৫২.৩১ গড়ে ১৩২৮৮ রান করেছেন। অন্যদিকে ৩৪৪টি ওয়ানদে ম্যাচে তিনি ৩৯.১৭ গড়ে ১০৮৮৯ রান করেছেন। অন্যদিকে নিজের খেলা একমাত্র টি-২০ ম্যাচে রাহুল ৩১.০০ গড়ে এবং ১৪৭.৬২ স্ট্রাইকরেটে ৩১ রান করেছেন। আইপিএলের ৮৯টি ম্যাচে তিনি ২৮.৩৩ গড়ে এবং ১১৫.৫২ স্ট্রাইকরেটে ২১৭৪ রান করেছেন।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *