রশিদ খানের হাটট্রিকে জামাইকা তালাওয়াস লন্ড ভন্ড 1

রশিদ খানের হাটট্রিকে জামাইকা তালাওয়াস লন্ড ভন্ড 2

অবশেষে হাটট্রিকের দেখা পেল সিপিএল। ব্রায়ান লারার ক্রিকেট চারণ ভূমি ওয়েস্ট ওয়েন্ডিজে ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লীগ (সিপিএল) শুরু হয়েছে ২০১৩ সাল থেকে। এবারের আগে হয়েছে চার আসর। কিন্তু দ্বীপরাষ্ট্রের এ লীগে কোনো বোলারের হ্যাটট্রিক ছিল না। তবে লীগের পঞ্চম আসরে এসে গৌরবের হ্যাটট্রিক করলেন আফগানিস্তানের তরুণ লেগ স্পিনার রশিদ খান।

এতে প্রথম এলিমিনেটরে তার দল গায়ানা অ্যামাজন ওয়ারিওর্স ৫ উইকেটে হারালো জ্যামাইকা তালাওয়াসকে। জামাইকা তালাওয়াস ১৪ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ১১৪ রান তুলে ফেলে বড় সংগ্রহের দিকে ই ছুটছিল। কিন্তু ১৫ তম ওভারে রশিদ খানের হাটট্রিক ঝড়ে লন্ড ভন্ড হয়ে যায় জামাইকা তালাওয়াস ; ১৫ ওভার শেষে স্কোর দাড়ায় ১১৬/৭। পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষ দুই দল হিসেবে আগের দিন প্লে অফে মুখোমুখি হয় সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস ও ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্স। সেখানে ৩৮ রানে জিতে ফাইনালের টিকিট কাটে সেন্ট কিটস। হেরে যাওয়া দল ত্রিনবাগো নাইটেরও ফাইনালে ওঠার সুযোগ রয়েছে। এক্ষেত্রে ত্রিনবাগো নাইটকে শুক্রবার খেলতে হবে গায়ানা অ্যামাজনের বিপক্ষে দ্বিতীয় এলিমিনেটরে। প্রথম এলিমিনেটরে জ্যামাইকা তালাওয়াসকে হারিয়ে গায়ানা আমাজন ফাইনালের পথে এক ধাপ এগিয়ে গেল। গত কয়েক আসর ধরেই জ্যামাইকা তালাওয়াস ও গায়ানা অ্যামাজনের মধ্যকার লড়াইটা জমজমাট। আগের চার আসরে দুইবার তারা ফাইনালে মুখোমুখি হয়েছে। দুইবারই গায়ানা অ্যামাজনকে হারিয়ে শিরোপা জেতে জ্যামাইকা তালাওয়াস। লীগের প্রথম আসরে ৭ উইকেটে ও সর্বশেষ গত বছর ৯ উইকেটে জেতে জ্যামাইকা তালাওয়াস। তবে ২০১৭ তে ৫ম আসরে এসে সেই জ্যামাইকা তালাওয়াসকে প্রথম এনিমিনেটরে হারিয়ে বিদায় করে দিয়ে মধুর প্রতিশোধ নিলো গায়ানা অ্যামাজন। ত্রিনিদাদের ব্রায়ান লারা স্টেডিয়ামে টস হেরে আগে ব্যাটে গিয়ে জ্যামাইকা তালাওয়াস। সংগ্রহ করে ৮ উইকেটে ১৬৮ রান।

১৫ তম ওভারের প্রথম তিন বলে ই হাটট্রিক পূরণ করেন রশিদ খান। প্রথম তিন বলেই তুলে নেন গায়ানার লেগ স্পিনার রশিদ খান, আন্দ্রে ম্যাকার্থি, জোনাথন ফু ও রোভম্যান কে। জবাবে ১৭.৫ ওভারে ৫ নেয় গায়ানা অ্যামাজন। রান তাড়া করতে নেমে দলীয় ২৩ রানের মাথায় প্রথম উইকেট হারায় গায়ানা অ্যামাজন। সোহেল তানভির ফেরেন মাত্র ৭ রানে। তবে এরপর দ্বিতীয় উইকেটে ৬৭ রান যোগ করেন লুক রনকি ও ওয়ালটন। ওয়ালটন ৩৯ রানে ফেরার পর রনকি ৫ ছক্কা ও ৫ চারে ৩৩ বলে করেন ৭০ রান। আর শেষের দিকে ২৪ বলে ২৯ রানে অপরাজিত থেকে গায়ানার জয় নিশ্চিত করে মাঠ ছাড়েন আসাদ ফুদাদিন। জ্যামাইকার হয়ে ২৫ রানে তিন উইকেট নেন বাংলাদেশি অলরাউন্ডার মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। এর আগে সিপিএলের ইতিহাসে প্রথম হ্যাটট্রিক তুলে নেন রশিদ খান।

Nazmus Sajid

Sports Fanatic!

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *