‘পদ্মভূষণ’ ভারতের তৃতীয় সর্বোচ্চ অসামরিক সম্মাননা। ১৯৫৪ সালের ২ জানুয়ারি ভারতের রাষ্ট্রপতি কর্তৃক এই পুরস্কার প্রবর্তিত হয়। ভারতের অসামরিক সম্মাননাগুলির মর্যাদাক্রম অনুসারে এই সম্মাননার স্থান ভারতরত্ন ও পদ্মবিভূষণের পরে, কিন্তু পদ্মশ্রীর আগে। জাতির প্রতি বিশেষ অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ এই সম্মাননা প্রদান করা হয়। ভারতের সাবেক অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনির দখলে আরও একটি পুরস্কার যোগ হতে যাচ্ছে। অর্জুন, রাজীব গান্ধী খেলরত্ন, পদ্মশ্রীর পর এবার পদ্মভূষণ পুরস্কারটিও তিনি পেতে যাচ্ছেন, যা ভারতের তৃতীয় সর্বোচ্চ বেসামরিক সম্মান। ক্রিকেটে অসাধারণ অবদান রাখার জন্য এ বছর পদ্মভূষণ পুরস্কারের জন্য মহেন্দ্র সিং ধোনিকে মনোনীত করেছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই)। ধোনি যদি পদ্ম ভূষণ পুরস্কার পান তাহলে তিনি ১১তম ভারতীয় ক্রিকেটার হিসাবে এই পুরস্কার পাবেন। বিসিসিআইয়ের একটি সূত্রে জানানো হয়েছে, এ বছর ধোনি ছাড়া দ্বিতীয় কোনও ক্রিকেটারের নাম পদ্মভূষণ পুরস্কারের জন্য পাঠানো হয়নি। বোর্ডের এক উচ্চ আধিকারিক বলেন, ‘ভারতীয় ক্রিকেটে ধোনির অপরিসীম অবদান নিয়ে কোনও সন্দেহ নেই৷ এই সম্মানের জন্য সবচেয়ে বেশি যোগ্য অবশ্যই তিনি৷ দুটো বিশ্বকাপ জেতার পাশাপাশি ৯০টি টেস্ট খেলার এবং ওয়ান ডে-তে ১০ হাজারের কাছাকাছি রান রয়েছে ধোনির৷ পদ্মভূষণের জন্য ওর থেকে বেশি যোগ্য ব্যক্তি আর কেউ নেই ৷’

মহেন্দ্র সিং ধোনির অধিনায়কত্বে ভারত ২০০৭ আইসিসি বিশ্ব টুয়েন্টি২০ , ২০০৭-০৮ সালের সিবি সিরিজ, ২০০৮ সালের বর্ডার-গাভাস্কার ট্রফি , ২০১০ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ২-০ ব্যবধানে একটি সিরিজ ও ২০১১ ক্রিকেট বিশ্বকাপ জয় করেছে। তার অধিনায়কত্বেই ভারত টেস্টের র্যাঙ্কিংয়ে এক নম্বরে উঠে এসেছিল। এখনও পর্যন্ত টেস্ট এবং ওয়ান-ডে ক্রিকেটে তার রেকর্ড ভারতীয় অধিনায়কদের মধ্যে সেরা। তিনি ২০১৩ সালে ইংল্যান্ড এ অনুষ্ঠিত আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি জয় করেন ,সেই সাথে বিশ্বের প্রথম অধিনায়ক যিনি আইসিসি র সব টুর্নামেন্ট জয় করার কৃতিত্ব রয়েছে । আইপিএল ২০১০ ও চ্যাম্পিয়ন্স লীগে তিনি চেন্নাই সুপার কিংস দলের অধিনায়কত্ব করছেন। তার নেতৃত্বে ভারতীয় দল প্রথম শ্রীলঙ্কা ও নিউজিল্যান্ডের মাটিতে ওয়ানডে সিরিজ জয় করেছে। ধোনি একাধিক সম্মান ও পুরস্কার পেয়েছেন।

তিনি ২০০৮ ও ২০০৯ সালে আইসিসি একদিনের ক্রিকেটের বর্ষসেরা খেলোয়াড়ের পুরস্কার পান। তিনিই প্রথম ভারতীয় যিনি এই পুরস্কার পেয়েছেন। ২০০৯ সালে ক্রিকেটের বাইবেল নামে পরিচিত উইজডেনের স্বপ্নের টেস্ট একাদশ দলের অধিনায়ক হিসেবে ঘোষিত হন। ২০০৯ সালে ধোনি আইসিসি ওয়ার্ল্ড টেস্ট এবং আইসিসি ওয়ানডে দলের অধিনায়ক হিসেবে তার নাম ঘোষিত হয়। এর আগে পদ্মভূষণ অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন সিকে নাইড়ু, স্যার বিজয় আনন্দ, ভিনু মানকড়, লালা অমরনাথ, দীনকর দেওদার, কপিল দেব, চান্দু বোর্দে, সুনীল গাভাস্কার, শচীন টেন্ডুলকার,রাহুল দ্রাবিড়।

SHARE
A Cricket enthusiast who is pursuing his passion.

আরও পড়ুন

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সর্বাধিক সেঞ্চুরির মালিক যে পাঁচ ক্রিকেটার

ক্রিকেটে একজন ব্যাটসম্যানের মানদণ্ড বিচার করার ক্ষেত্রে কোন ব্যাটসম্যান কত সংখ্যক সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন তাঁর ক্যারিয়ারে তা অতীব...

দ্বিতীয় ওয়ানডেতে যে তিনটি মাইলফলক স্পর্শ করতে পারেন ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা

ঘরের মাটিতে জয়রথ যেন থামছেই না টিম ইন্ডিয়ার। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সাদা পোশাকে সিরিজ জয়ের পর রঙিন...

স্ট্যাটস: ভারত বনাম ওয়েস্টইন্ডিজ: প্রথম ওয়ানডেতে হতে পারে সাতটি রেকর্ড, রোহিত আর ধবন ইতিহাস বইতে নথিভূক্ত করতে পারেন নিজের নাম

স্ট্যাটস: ভারত বনাম ওয়েস্টইন্ডিজ: প্রথম ওয়ানডেতে হতে পারে সাতটি রেকর্ড, রোহিত আর ধবন ইতিহাস বইতে নথিভূক্ত করতে পারেন নিজের নাম
ভারতীয় দল আর ওয়েস্টইন্ডিজ দলের মধ্যে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচ আগামিকাল ২১ অক্টোবর গুয়াহাটির মাঠে...

হ্যাপি বার্থ ডে সেহবাগ: এই ৫টি জিনিস প্রমান করে যে এখনও পর্যন্ত হয়নি বীরেন্দ্র সেহবাগের মত ব্যাটসম্যান

হ্যাপি বার্থ ডে সেহবাগ: এই ৫টি জিনিস প্রমান করে যে এখনও পর্যন্ত হয়নি বীরেন্দ্র সেহবাগের মত ব্যাটসম্যান
বিশ্বের সবচেয়ে আক্রামণাত্মক ওপেনার্সদের একজন বীরেন্দ্র সেহবাগ ৪০তম জন্মদিন পালন করছেন। ক্রিকেট জগত আর ওপেনিংকে নতুন পরিভাষা...

প্রত্যেক উইকেট নেওয়ার পর মিলত ১০ টাকা, ভারতীয় দলে জায়গা পাওয়ার পর রাতভর কেঁদেছিলেন এই খেলোয়াড়

প্রত্যেক উইকেট নেওয়ার পর মিলত ১০ টাকা, ভারতীয় দলে জায়গা পাওয়ার পর রাতভর কেঁদেছিলেন এই খেলোয়াড়
নিজের দলের হয়ে উইকেট নিতে প্রত্যেক বোলারেরই ইচ্ছে থাকে। পাপু রায় এক এমন বোলার যার জন্য উইকেট...