অস্ট্রেলিয়ান শিবিরে কিসের আতংক দেখুন 1

১৫ বছর আগে অস্ট্রেলিয়াকে যেমন খেলতে দেখতাম, এখনকার ভারত ঠিক তেমনটাই খেলছে।’— কথাগুলো বলেছেন ভারতীয় ক্রিকেট বিশ্লেষক রবি শাস্ত্রী। চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে হারার পর যেন জয়ের রথ থামছে ই না ভারতে। হোক সেটা ক্যারিবিয়ান দ্বীপে কিংবা উপমহাদেশের দ্বীপ রাষ্ট্র শ্রীলঙ্কা অথবা নিজেদের ঘরে মাঠে ; সর্বত্র ই অজয়ে ‘টিম ইন্ডিয়া’। ইন্দোরে পাঁচ ম্যাচ সিরিজের তৃতীয় ম্যাচেও জয়ী হয়ে দুই ম্যাচ বাকি থাকতে ই অস্ট্রেলিয়া কে ৩-০ ব্যবধানে সিরিজ হারিয়ে রবি শাস্ত্রীর সেই তুলনটা কেই যেন আরো বাস্তব করল ভারত। আর এ নিয়ে টানা এগারো ওয়ানডেতে হারের মুখ দেখল অজিরা। এর মাঝে ই অজিদের জন্য আরো দু:সংবাদ নিয়ে এল স্পিনার আস্টন আগারের চোট। আস্টন আগারের চোট তাকে সিরিজ থেকে ই ছিটকে ফেলে দেয়। তেইশ বছর বয়সী এই স্পিনার একটি বাউন্ডারি বাচাতে গিয়ে হাতে চোট পান। চোট পেয়ে তখন ই মাঠের বাহিরে চলে গেলেও পরে আবার মাঠে ফিরেছিলেন। দশ ওভারে ৭১ রানের বিনিময় পেয়েছিলেন বিরাট কোহলীর মূল্যবান উইকেট। রিপোর্ট দেখে অস্ট্রেলিয়া দলের চিকিৎসক রিচার্ড শো জানান আগারকে অস্ত্র পাচার করতে হবে, আর এতে করে শুধু সিরিজের বাকি ম্যাচগুলো না বরং ঘরোয়া ক্রিকেটের প্রথম দিকের ম্যাচগুলো থেকে বাদ পড়তে পারেন আগার। আগারের এই চোটের ফলে একাদশে সুযোগ পেতে পারেন আরেক স্পিনার এডাম জাম্পা।

ম্যাচ শেষে নিশ্চিত হয় আগারের সিরিজ শেষ হয়ে যাওয়ার কথা। দলের চিকিৎসক রিচার্ড শো বলেন, ” ম্যাচ শেষে তার এক্সরে করানো হয়, এতে ই নিশ্চিত হয় তার আঙ্গুলে ফ্লাকচার হয়েছে। ” তিনি আরো বলেন, “সে দেশে চলে যাবেন এবং সেখানে গিয়ে অস্ত্র পাচারের বিষয় বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের সাথে কথা বলবেন।” আস্টন আগারের এই আঘাত বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়ার জন্য একটি বড় ধাক্কা যখন তারা ওয়ানডের এক নাম্বার দলটির বিরুদ্ধে ধোবল ধোলাই এড়াতে লড়ছে। ভারতের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে এদিন প্রথমবার আগে ব্যাট করতে নামে অস্ট্রেলিয়া। দারুণ ব্যাটিং পিচে তিনশ’র উপরে রান তোলার আভাস দিলেও সেটা হয়নি। কারণ মিডল অর্ডার থেকে লোয়ার অর্ডারের ব্যাটসম্যানরা সুবিধা করতে পারেনি। তবে সিরিজে নিজেদের দলীয় সর্বোচ্চ রান ঠিক তুলে নিয়েছে অসিরা। ৬ উইকেটে তারা করে ২৯৩ রান। হিলটন কার্টরাইটের বদলে অ্যারন ফিঞ্চ ওয়ানডেতে সুযোগ পান গত জুনের পর। ফিরেই দুর্দান্ত এক ইনিংস খেলেছেন এ ওপেনার। জবাবে ভারত ৪৭.৫ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে জয় নিশ্চিত (২৯৪) করে। দলের হয়ে পান্ডে সর্বোচ্চ ৭৮, রোহিত শর্মা ৭১, রাহানে ৭০, মনিস পান্ডে অপ: ৩৬ ও অধিনায়ক বিরাট কোহলী ২৬৮ রান করেন।

Nazmus Sajid

Sports Fanatic!

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *